ChatGPT কি? কিভাবে কাজ করে? বিস্তারিত

আমি যদি এখন আপনাকে বলি যে আপনার এমন একটা বন্ধু আছে যাকে আপনি থাকে যে বিষয়েই জিজ্ঞেস করেন না কেন সে আপনাকে মুহূর্তেই সেই সমস্যার সমাধান করে দিতে পারে। আপনাকে সেই সমস্যার  সম্পূর্ণ ব্যাখ্যা দিতে পারে। এছাড়া আপনাকে বিভিন্ন দিকনির্দেশনা দিতে পারে বিভিন্ন ধরনের সাহায্য সহযোগিতা করতে পারে।

এখন আপনি হয়তো ভাবছেন যে এমন বন্ধু কোথায় পাব যে সব সময় সবকিছু নিয়ে আমাকে সাহায্য করার জন্য বসে থাকবে? 

এটাই হচ্ছে আসল কথা, এমন কাউকে পাওয়া খুব মুশকিল যে আপনাকে সকল সমস্যার সমাধান দেওয়ার জন্য বসে থাকবে এবং সবকিছু আপনাকে বিস্তারিত বুঝিয়ে দিবে।

আচ্ছা যাই হোক,  এমন হয়তো মানুষ নাই কিন্তু এমন একটি চ্যাটবট অবশ্যই আছে যাকে আপনি আপনার সকল সমস্যা লিখে জানালে সেই সাথে সাথে আপনাকে সমাধান দিতে সক্ষম। এবং এটি আপনাকে এমন ভাবে জানাবে যে বিষয়টি আপনার বন্ধুই আপনাকে সরাসরি জানাচ্ছে। কথা বলছিলাম এমন একটি চ্যাটবট নিয়ে যেটা OpenAI কোম্পানি রিসেন্টলি  ইন্টারনেটে প্রকাশ করেছে ।আজকে আমরা এই Chatgpt কি? এটা কিভাবে কাজ করে? এবং এটা দিয়ে কি কি করা যাবে? এটার ভবিষ্যৎ কেমন হবে? সত্যি কি এই টুলটি চাকরির বাজার ধ্বংস করবে? এসব নিয়ে বিস্তারিত জানব।

Chat GPT কি?

time-taken-to-reach-1-million-users-to-chatgpt
Time taken to reach 1 Million users to ChatGPT

Chat GPT হচ্ছে Open AI কর্তৃক তৈরিকৃত একটি চ্যাটবট টুল। এটা ইন্টারনেটে প্রকাশ হয় ২০২২ এর নভেম্বরের শেষের দিকে। যেটা আপনাকে বিভিন্ন সমস্যার সমাধান বিভিন্ন প্রশ্নের উত্তর এবং বিভিন্ন তথ্য দিয়ে সাহায্য করবে। এছাড়া এই চ্যাটবটটির সবচেয়ে বড় গুণ হচ্ছে এটা একজন মানুষের মতো করে আপনাকে সাহায্য করবে।

আরো মজার বিষয় হচ্ছে এটা মাত্র দিনে তাদের মিলিয়ন ব্যবহারকারী অর্জন করে ফেলে। যেটা করতে ফেসবুকের লেগেছিল  ১০ মাস।

Chat GPT কিভাবে কাজ করে?

চ্যাট জিপিটি আসলে কিভাবে কাজ করে এটা ১০০% সঠিকভাবে বলা কঠিন। তবে আমি এখানে আপনাদের সাথে সাধারণ প্রসেস গুলো শেয়ার করতেছি।

মনে করুন, আপনার একটা ছোট্ট ভাই আছে যেটার বয়স বছর। এখনো তার ব্রেনের বুদ্ধিমত্তা গুলো পুটে ওটে নাই। এই সময়ে আপনি যদি থাকে যেকোন একটা বিষয় নিয়ে জিজ্ঞেস করলে সে কিন্তু বলতে পারবে না। আপনি হয়ত ভাবতেছেন, প্রশ্নের উত্তর তু দূরের কথা সে এখনো ঠিকমত কথাই তু বলতে পারে না। আসলেই এটা সত্যি।

আচ্ছা, এবার আসুন আপনার বাড়ির আসে পাশে প্রতিনিয়ত কুকুর, বিড়াল, আরো বিভিন্ন রকমের প্রাণী ঘুরে বেড়ায়। এখন আপনি প্রতিদিনি আপনার ভাইকে বলতে লাগলেন এটা হচ্ছে কুকুর, এটা কামড় দিবে কাছে যেও না। আর ঔটা হচ্ছে বিড়াল। এভাবে আপনি থাকে বলতে বলতে তার মাথার মধ্যে একটা ধারণা জমা হচ্ছে যে এটা কুকুর, আর ঔটা বিড়াল। এভাবে আপনি যদি থাকে একমাস বলতে থাকেন তাহলে পরবর্তীতে আপনি থাকে জিজ্ঞেস করলে সে সহজেই আপনাকে চিহ্নিত করে দিতে পারবে কোনটা বিড়াল, কোনটা কুকুর।

ঠিক তেমনি মেশিন লার্নিং, আর্টিফিশিয়াল ইন্টেলিজেন্স এবং রোবটিক্স এও প্রতিটা বিষয় তাদের কে ট্রেন করা হয়। বিষয়টা যদি আরো সহজভাবে বলি, মেশিন কিন্তু আবার মানুষের মতো না যে একটা বিড়ালকে যদি কাপড় পড়িয়ে চোখে চশমা লাগিয়ে মেশিনকে জিজ্ঞেস করা হয় তখন মেশিনও হিমশিম খেয়ে যায়। তাই এখানে যেটা হয় শুধুমাত্র বিড়ালকে শনাক্ত করার জন্য বিড়ালের বিভিন্ন রকমের। বিভিন্ন এঙ্গেলের হাজারো থেকে লক্ষাধিকবি মেশিনের ব্রেনে সেভ করে সেটাকে ট্রেন করানো হয়। এভাবে একটা আর্টিফিশিয়াল ইন্টেলিজেন্স এবং মেশিনলার্নিং কাজ গুলো করা হয়ে থাকে।

তবে OpenAI কোম্পানি তাদের ChatGPT সিস্টেমে GPT(Generative Pre trained transformer)  3.5 ব্যবহার করেছে যেটা ১৭৫ বিলিয়ন আর্টিফিশিয়াল নিওরেল নেটওয়ার্ক এর সমন্বয় তৈরি করা হয়েছে এবং তারা আরো ব্যবহার করেছে NLP(Netural leanguage Processing) যেটা বিভিন্ন টেক্সট কে মানুষের মত করে বুঝতে এবং উত্তর দিতে সাহায্য করে। আমরা  এটাকে আর্টিফিশিয়াল টুল বা মেশিন লার্নিং টুল যাইবলি না কেন সত্যিকার অর্থে এটাতে ব্যবহার করা হয়েছে অসংখ্য মাধ্যম। যেগুলোর মাধ্যমে এটাকে মানুষের ব্রেনের মত করে চিন্তা করতে বা উত্তর দেওয়ার মত কাজ গুলো করার জন্য ট্রেনিং দেওয়া হয়েছে। তবে এখানে তারা শুধুমাত্র নিজেদের ডেটা থেকে সব তথ্য দেয় না তারা অনেকতথ্য ইন্টারনেটের বিভিন্ন সোর্স থেকে সংগ্রহ করে মানুষের কাছে দেখায়। মূলত এটা ট্রেনিং প্রক্রিয়ায় উত্তর প্রধান বা সমস্যা সমাধান এর মতকাজ গুলো সম্পন্ন করে।

📑আরো পড়ুনঃ ২০২৩ এ সফল হতে চান? ১০ টি বিষয় মেনে চলুন

Chatgpt ব্যবহার করে কি কি করা যাবে ?

এই প্রশ্নটা আমি নিজেও জানি না তবে যা জানতে পারলাম তা সব এই চ্যাটবট থেকেই। একটা ট্রেনিং করানো টুল কখনো সবকিছু করতে পারবে না। এখানে তারমধ্যেও অনেক লিমিটেশন আছে। এখানে চ্যাটবটটি যে সকল সমস্যার সমাধান দিতে পারবে তা হল।

  • Programming (e.g., Python, Java, C++, JavaScript)
  • Web development (e.g., HTML, CSS, JavaScript, React, Angular)
  • Data science and machine learning (e.g., Python libraries like NumPy, pandas, scikit-learn, TensorFlow, Keras)
  • Databases (e.g., SQL, MongoDB, Cassandra)
  • Cloud computing (e.g., AWS, Azure, GCP)
  • Linux and command line
  • English grammar and writing
  • General knowledge and research.

উপরের বিষয় গুলো নিয়ে আপনি এই টুলটি থেকে যেকোন সাহায্য নিতে পারবেন।

ChatGPT কিভাবে ব্যবহার করবেন ?

চ্যাটবটটি ব্যবহার করার জন্য আপনাকে https://chat.openai.com/ 👈এই লিংকে যেতে হবে এরপর এখানে একটি একাউন্ট তৈরি করতে হবে। এরপর নিচে দেখতে পাবেন একটি সার্চবক্স যেখানে আপনি যেকোন কিছু লিখে জিজ্ঞেস করবেন বা সমস্যার সমাধান চাইতে পারবেন। এখানে আরো সুবিধা আছে যে আপনার যদি প্রথম উত্তরটি পছন্দ না হয় তাহলে আপনি Re-Generate Answer ক্লিক করে নতুন উত্তর পেয়ে যাবেন।

ChatGPT এর ভবিষ্যৎ কি হবে ?

যেকোন একটা কিছুর ভবিষ্যৎ কি এবং কেমন হবে তা বলা মুশকিল। তবে আমি এটা বলতে পারি যেহেতু এটা একটা চ্যাট বক্স টুল তো এখানে অনেক বিষয় এখনো লিমিটেশনে আছে। তারা এই লিমিটেশনটা কমিয়ে আনবে এবং এটাকে আরো অন্যতর প্রযুক্তিতে আপডেট করবে। হয়তো তারা এখানে ভয়েস সার্চ অপশন লাগাবে অথবা ইমেজ সার্চ অপশন রাখবে ধরনের বিভিন্ন ফাংশন তারা কিন্তু এখানে যুক্ত করতে পারে তবে এটা সম্পূর্ণ তাদের উপর নির্ভরশীল। সুতরাং, এখানে হান্ডেট পার্সেন্ট নিশ্চিত করে বলা সম্ভব না এই টুলস এর ভবিষ্যৎ কেমন হবে।

ChatGPT কি সম্পূর্ণ ফ্রি?

বর্তমানে এটা সম্পূর্ণ ফ্রিতে ব্যবহার করা করা গেলেও পরবর্তীতে তা আর ফ্রি থাকবে না। এখানে তারা সাবস্ক্রিপশন সিস্টেম ব্যবহার করবে। জানা গেছে যে এখানে প্রতিটি সার্চ এর জন্য সেই কোম্পানিকে 0.01$ খরচ তাদেরকে বহন করতে হচ্ছে। তাই তারা এই সিস্টেমটা ফ্রিতে রাখতে পারবেনা। আরো জানা গেছে যে একজন ইউজারকে এটি ব্যবহারের জন্য কমপক্ষে বছরে 500$ পর্যন্ত খরচ করতে হবে।

📑আরো পড়ুনঃ ওয়েব ৩.০ কি? ওয়েব ৩.০ যেভাবে বিশ্বকে পরিবর্তন করবে। বিস্তারিত

Chat GPT কি চাকরির বাজার ধ্বংস করে ফেলবে?

 

OpenAI এর চ্যাটবটটি আসার পর থেকে যেভাবে সকল প্রশ্নের উত্তর এবং সকল সমস্যার সমাধান দিয়ে যাচ্ছে, যার ফলে সকলে ভয় পাচ্ছে যে এধরনের AI টুলগুলো ভবিষ্যতের সব চাকরি ধ্বংস করে ফেলবে।

আচ্ছা চলুন বিষয়টা একটু ব্যাখ্যা সহ জেনে আসি। বর্তমানে ইন্টারনেটে এমন অনেক হাজারো টুল আসে যেগুলো মানুষের বিভিন্ন কাজকে সহজ করে দিচ্ছে অথবা বিভিন্ন সমস্যার সমাধান দিচ্ছে। একটা উদাহারণ দিয়ে যদি বলি, বর্তমান সময়ের অন্যতম একটা জনপ্রিয় টুল হচ্ছে গুগলের ট্রান্সলেটর। যেটা অনলাইনে প্রকাশ হয়েছিল ২০০৬ সালের এপ্রিলে। বর্তমানে এটা প্রতিদিন ৫০০ মিলিয়নের বেশি মানুষ ব্যবহার করতেছে। গুগল ট্রান্সলেটর যখন আসল তখন যারা বিভিন্ন ভাষা শিখায় তারা ধরে নিল এটা তাদের প্রফেশনটা কেড়ে নিবে। কিন্তু আপনি এখন দেখুন। যার প্রয়োজন সে কিন্তু ঠিকই তার প্রয়োজনীয় ভাষাটি কারো না কারো কাছ থেকে শিখতেছে। আন্যদিকে ট্রাসলেটর কেও যার যার প্রয়োজন মত ব্যবহার করতেছে।

অন্যদিকে ডিজাইনার জগতে এমন অনেক টুলস আসতেছে যেটার ফলে অনেকেই মনে করে ডিজাইনারদের ভবিষ্যৎ অন্ধকার। এই যে যারা ক্যানভা ব্যবহার করে তারা প্রত্যেকেই কিন্তু মনে করে এটা দিয়ে তু সব করা যাচ্ছে তাহলে ডিজাইনার দের প্রয়োজন হবে কেন? কিন্তু আপনি কি আপনার আশানুরূপ ডিজাইনটি টুলস থেকে পাচ্ছেন? বেশিরভাগ ক্ষেত্রে এটা হয় না। যার ফলে অবশেষে একজন ডিজাইনার এর কাছে অবশ্যই যেতে হচ্ছে।

আবার অনলাইনে শতশত AI রাইটিং টুল আছে যেগুলো থেকে একক্লিক হাজারো শব্দের লেখা পাওয়া যায়। তবে আপনি টুল থেকে যে লেখাগুলো পাচ্ছেন তা কি আদৌ ইউজার ফ্রেন্ডলি হচ্ছে কিনা  অথবা আপনি যে বিষয়ে বুঝাতে চাচ্ছেন তা কি সঠিকভাবে পারতেছেন কিনা তা আপনাকে দেখতে হবে। আমি নিজেও ধরনের অনেক টুল ব্যবহার করে দেখেছি যা কখনো আমার কাছে গ্রহণযোগ্য লেখারমত ছিল না।যারফলে ঠিকই নিজেকে লিখতে হচ্ছে।

মূলকথা হচ্ছে প্রযুক্তির উন্নতির সাথে সাথে এমন আরো শতশত টুল আসবে। তবে তা কখনো মানুষের চাকরির জাগায় দখল করবে না। পুরাপুরি দখল করবে না বললে ভুল হবে কারণ যারা প্রযুক্তির সাথে সাথে নিজের স্কিলকে দক্ষ করবে না তখন তাদের পুরানো দক্ষতা দিয়ে চাকরির বাজারে ঠিকে থাকতে কস্ট হবে।

অন্যদিকে খুশির সংবাদ হচ্ছে নতুন নতুন চাকরি সৃষ্টি হচ্ছে। Chatgpt আসারপর অনেকেই Chatgpt এক্সপার্ট খুজতেছে। অনেকেই আবার এটার ডেভেলাপার খুজতেছে। বিভিন্ন কোম্পানি এর থেকে ভালো টুল তৈরি করার জন্য এক্সপার্ট খুজতেছে। ধরনের আরো অনেক নতুন নতুন কাজের স্পট তৈরি হচ্ছে।

সবশেষে একটা কথাই বলব আপনি যদি দক্ষ হন, আপনার যদি সঠিক জ্ঞান থাকে তাহলে টেকবিশ্বে যত কিছুই আসুক না কেন আপনার চাকরিস্থান কখনো দখল হবে না। সুতরাং, এসব গুজবে কান না দিয়ে নিজেকে সময় দিন আরো দক্ষ করার জন্য।

আশা করি আপনারা ChatGPT সম্পর্কে একটা ধারণা পেয়েছেন। আপনাদেরকে সঠিক তথ্য এবং ধারণা দেওয়ার জন্য অনেক রিসার্চ এবং সময়নিয়ে এই লেখাগুলো লেখা হয়েছে। এখন এই লেখাগুলো আপনাদের কাছে কেমন লেগেছে এবং ChatGPT এর সম্পর্কে আপনার মতামত কি তা কমেন্ট বক্সে লিখে জানাতে পারেন। সময় নিয়ে পড়ার জন্য ধন্যবাদ।

Related Articles

2 Comments

  1. এই বিষয়ে বাংলা ভাষায় কোন গাইডলাইন পাই নাই। অবশেষে এটা পড়ে একটু বিস্তারিত জানতে পারলাম। ধন্যবাদ এত সুন্দরভাবে লিখার জন্য।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Back to top button